সকাল ৮:০৯, রবিবার, ৯ই আষাঢ়, ১৪৩১ বঙ্গাব্দ

চট্টগ্রামে ৩ বাসে আগুন, ‘দুর্বৃত্তের দেওয়া’ বলতে নারাজ পুলিশ

আজকের সারাদেশ প্রতিবেদন:


চট্টগ্রাম-কক্সবাজার মহাসড়কের পাশে পার্ক করে রাখা ৩ টি বাস আগুনে পুড়ে গেছে। আগুনের সূত্রপাত নিয়ে পুলিশ তদন্তের কথা বললেও ‘দুর্বৃত্তের দেওয়া’ বলতে নারাজ। এই বিষয়ে মুখ খুলেনি ফায়ার সার্ভিসও।

সোমবার ভোর ৪ টার দিকে সাতকানিয়ার কেঁওচিয়ায় মডেল মসজিদের সামনে এই অগ্নিসংযোগের ঘটনা ঘটে। খবর পেয়ে সাতকানিয়া ফায়ার সার্ভিস স্টেশনের দুটি ইউনিট ঘটনাস্থলে পৌঁছে এক ঘন্টার চেষ্টায় আগুন নিয়ন্ত্রণে আনে।

আগুনের বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন সাতকানিয়া থানার পরিদর্শক (তদন্ত) মো. আতাউর রহমান।

তিনি বলেন, ‘পুড়ে যাওয়া বাসগুলো বড়, এগুলো মডেল মসজিদের একটু দক্ষিণে তাদের (মালিক) নিজস্ব ডিপুতে ছিল। ওদেরও পাহারাদার ছিল, তারা কিছু বলতে পারতেছে না। কীভাবে আগুন লেগেছে সেটা তদন্ত করা হচ্ছে।’

সারাদেশে বিএনপি ও সমমনাদলগুলোর চলমান সরকার বিরোধী আন্দোলনের অংশ হিসেবে কেউ ওই আগুন দিয়েছে কিনা জানতে চাইলে তিনি বলেন, ‘আমরা দুর্বৃত্তের আগুন বলতে পারছি না। কারণ গাড়িগুলো রাস্তার পাশে পার্ক করা ছিল, রাস্তার পাশে বলতে তাদের নির্ধারিত জায়গায়, ডিপুর মত।’

পুড়ে যাওয়া তিন বাসের মধ্যে দুটি শ্যামলী ও একটি হানিফ পরিবহনের বাস রয়েছে। এসব বাস চট্টগ্রাম-কক্সবাজার সড়কে গণপরিবহন হিসেবে চলাচল করত।

আগুনের সম্ভাব্য সূত্রপাত নিয়ে ফায়ার সার্ভিসের দায়িত্বপ্রাপ্ত কর্মকর্তাও কোনো মন্তব্য করতে রাজি হননি। সাতকানিয়া ফায়ার সার্ভিস স্টেশনের ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা এস এম হুমায়ুন কার্ণায়েন বলেন, ‘আমরা ভোর ৪ টা ৫ মিনিটে খবর পেয়েছি। আমাদের দুটো ইউনিট ঘটনাস্থলে পৌঁছে এক ঘন্টার চেষ্টায় আগুন নিয়ন্ত্রণে আনে।’

আগুনের সূত্রপাত নিয়ে প্রাথমিক ধারণা জানতে চাইলে তিনি বলেন, ‘এটা তো পাওয়া যায় না। এটা নিয়ে আমরা মন্তব্য করতে পারি না, পুলিশ মন্তব্য করবে।’

আজকের সারাদেশ/২০নভেম্বর/এএইচ