সকাল ৬:৫০, সোমবার, ৬ই জ্যৈষ্ঠ, ১৪৩১ বঙ্গাব্দ

কুবি প্রক্টরের ইন্ধনেই শিক্ষকদের ওপর হামলা, দাবি সহকারী প্রক্টরের

কুবি প্রতিনিধি:

কুমিল্লা বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্যের কার্যালয়ে উপাচার্য, কোষাধ্যক্ষ ও প্রক্টরিয়াল বডির উপস্থিতিতে সাবেক শিক্ষার্থী ও কর্মকর্তা-কর্মচারী কর্তৃক শিক্ষকদের উপর ‘হামলা’র ঘটনায় সহকারী প্রক্টরের পদ থেকে পদত্যাগ করেছেন ফার্মেসি বিভাগের প্রভাষক মো. কামরুল হাসান।

মঙ্গলবার (২০ ফেব্রুয়ারি) মো. কামরুল হাসান স্বাক্ষরিত এক চিঠিতে এ তথ্য জানা যায়।

চিঠিতে তিনি বলেন, গত ১৯ ফেব্রুয়ারি কুমিল্লা বিশ্ববিদ্যালয় শিক্ষক সমিতি-২০২৪ কার্যনির্বাহী পরিষদ নির্বাচন শেষে বঙ্গবন্ধুর আদর্শ ও মুক্তিযুদ্ধের চেতনায় বিশ্বাসী নীল দল পূর্ণ প্যানেলে জয়যুক্ত হয়ে শিক্ষক সমিতি-২০২৪ এর নির্বাচিত সদস্যগণ ও সাধারণ শিক্ষকগণ উপাচার্যের সাথে দেখা করতে গেলে প্রক্টরের ইন্ধনে অযাচিতভাবে কিছু সংখ্যক বহিরাগত সন্ত্রাসী এবং কুমিল্লা বিশ্ববিদ্যালয়ের উচ্ছৃঙ্খল ও বিপথগামী কতিপয় কর্মকর্তা-কর্মচারী উপাচার্যের উপস্থিতিতে শিক্ষকদের উপর হামলা করে। বারংবার অনুরোধ করা সত্ত্বেও হামালাকারীদের নিবৃত করা যাচ্ছিলো না, উপরন্তু দফায় দফায় হামলাকারীরা সাধারণ শিক্ষকদের অশ্রাব্য ভাষায় গালাগাল প্রদান ও শারীরিকভাবে লাঞ্ছিত করে। আমি এই হামলার ঘটনাটিকে প্রক্টর এবং প্রক্টরিয়াল বডির ব্যর্থতা হিসেবে মনে করছি এবং এর তীব্র নিন্দা জ্ঞাপন করছি। উল্লেখিত পরিস্থিতিতে, প্রক্টরিয়াল বডির অব্যবস্থাপনা এবং ব্যর্থতার কারণে প্রক্টরিয়াল বডির একজন সদস্য হিসেবে কাজ করতে আমি বিব্রতবোধ করছি।

তিনি আরও বলেন, প্রক্টরিয়াল বডির ব্যর্থতার প্রতিবাদ হিসেবে সহকারী প্রক্টর পদ থেকে আমি পদত্যাগ করছি এবং আমার এই পদত্যাগ পত্র আবেদনের তারিখ হতে কার্যকর করার জন্য অনুরোধ করছি।

আজকের সারাদেশ/একে